যুবদল সভাপতি টুকু কারাগারে

বিএনএ, ঢাকা: রাজধানীর পল্টন থানার নাশকতায় মামলায় যুবদলের কেন্দ্রীয় সভাপতি সুলতান সালাউদ্দিন টুকু ও সহ-সভাপতি নুরুল ইসলাম নয়নসহ ৭ জনকে রিমান্ড শেষে কারাগারে পাঠিয়েছেন আদালত। শুক্রবার (৯ ডিসেম্বর) ঢাকার মেট্রোপলিটন ম্যাজিস্ট্রেট মোহাম্মদ জসিম তাদের কারাগারে পাঠানোর আদেশ দেন।

আরো পড়ুন

এর আগে আসামিদের আদালতে হাজির করে মামলার সুষ্ঠু তদন্তের স্বার্থে কারাগারে আটক রাখার আবেদন করেন মামলার তদন্তকারী কর্মকর্তা। আবেদনের পরিপ্রেক্ষিতে আদালত তাদের কারাগারে পাঠানোর আদেশ দেন।

কারাগারে যাওয়া অপর আসামিরা হলেন—মোকলেস মিয়া, মোশাররফ হোসেন খোকন, জজ মিয়া, ফরিদ উদ্দিন মনা ও আব্দুল্লাহ। আদালতের পল্টন থানার সাধারণ নিবন্ধন কর্মকর্তা উপ-পরিদর্শক (এসআই) শাহ আলম বিষয়টি জানিয়েছেন।

তিনি জানান, রিমান্ড শেষে তাদের আদালতে হাজির করে কারাগারে আটক রাখার আবেদন করেন মামলার তদন্ত কর্মকর্তা পল্টন থানার এসআই বিজন কুমার বিশ্বাস। সেই আবেদনের প্রেক্ষিতে বিচারক তাদের কারাগারে পাঠানোর আদেশ দেন।

এরআগে গত ৩ ডিসেম্বর রাত ১১টার দিকে রাজশাহী বিভাগীয় গণসমাবেশ শেষে ফেরার পথে রাজধানীর আমিনবাজার থেকে সুলতান সালাউদ্দিন টুকু ও নুরুল ইসলাম নয়নকে আটক করা হয়। মামলা সূত্রে জানা যায়, চলতি বছরের ২৬ মে রাজধানীর পল্টন থানাধীন এলাকায় আসামিরা পরস্পর যোগসাজশে বেআইনী জনতাবদ্ধে মশাল মিছিল বের করে দাঙ্গা হাঙ্গামা করে। সরকার বিরোধী বিভিন্ন উস্কানীমূলক বক্তব্য ও গাড়ি ভাংচুরসহ পুলিশকে আক্রমণ করে গুরুতর জখম করে।

এ ঘটনায় পল্টন থানার এসআই মো. কামরুল হাসান মামলাটি দায়ের করেন। মামলাটিতে বিএনপি সিনিয়র যুগ্ম মহাসচিব রুহুল কবির রিজভীসহ ৩০ জনকে এজাহার নামে আসামি করা হয়। এছাড়াও মামলায় একশত থেকে দেড়শত জনকে অজ্ঞাত আসামি করা হয়েছে।

বিএনএ/এমএফ