Bnanews24.com
Home » মহেশখালী উন্নত উপজেলা হবে : নসরুল হামিদ
টপ নিউজ সব খবর

মহেশখালী উন্নত উপজেলা হবে : নসরুল হামিদ

বিএনএ, কক্সবাজার : কক্সবাজারের ডিজিটাল আইল্যান্ড মহেশখালীর মাতারবাড়ি তাপবিদ্যুৎ কেন্দ্র, কালারমারছড়া এসপিএম প্রকল্প পরিদর্শন করেছেন বিদ্যুৎ, জ্বালানি ও খনিজসম্পদ প্রতিমন্ত্রী নসরুল হামিদ।

বৃহস্পতিবার (১৯ জানুয়ারি) সকাল ১১টায় মাতারবাড়ী তাপবিদ্যুৎ প্রকল্পে অবতরণ করেন প্রতিমন্ত্রীকে বহনকারী হেলিকপ্টার।

 

এ সময় উপস্থিত ছিলেন, স্থানীয় সংসদ সদস্য আশেক উল্লাহ রফিক, মাতারবাড়ী তাপবিদ্যুৎ নির্মাণ প্রকল্পের দায়িত্বপ্রাপ্ত প্রতিষ্ঠান কোল পাওয়ারের প্রকল্প পরিচালক মোহাম্মদ আবুল কালাম আজাদ, মহেশখালী উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা (ইউএনও) মোহাম্মদ ইয়াছিন, কোল পাওয়ারের মাতারবাড়ী সাইট অফিসের দায়িত্বপ্রাপ্ত তত্ত্বাবধায়ক প্রকৌশলী মোহাম্মদ মনোয়ার হোসেন মজুমদার, মাতারবাড়ী ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান এস এম আবু হায়দার, ধলঘাট ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান কামরুল হাসান, মাতারবাড়ী ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের সভাপতি জি এম ছমি উদ্দিন।

এসময় প্রতিমন্ত্রী নসরুল হামিদের মাতারবাড়ী তাপবিদ্যুৎ প্রকল্পের নির্মাণকাজ ঘুরে দেখেন এবং প্রকল্পের কাজের অগ্রগতি দেখে সন্তোষ প্রকাশ করেন।

পরিদর্শন শেষে বিদ্যুৎ ও জ্বালানী প্রতিমন্ত্রী বলেন, দ্রুত সময়ে এ প্রকল্পটির কাজ আরো এগিয়ে যাবে। আওয়ামী লীগ সরকারের আমলে মহেশখালীকে ডিজিটাল আইল্যান্ড ঘোষনা করা হয়।এ দ্বীপকে একটি আধুনিক ও উন্নত উপজেলা হিসেবে গড়ে তোলা হবে। সরকারের এ উন্নয়নের মহাযজ্ঞে সবাইকে আন্তরিকভাবে সহায়তা করার আহ্বান জানান তিনি।

মাতারবাড়ী তাপবিদ্যুৎ প্রকল্প পরিদর্শন শেষে দুপুর দুইটার দিকে বিদ্যুৎ প্রতিমন্ত্রী হেলিকপ্টারে করে মহেশখালীর কালারমারছড়া ইউনিয়নের সোনারপাড়া এলাকায় এসপিএম প্রকল্পের নির্মাণাধীন ট্যাংক ফার্ম পরিদর্শনে যান। এ সময় বিদ্যুৎ প্রতিমন্ত্রীর সঙ্গে স্থানীয় সংসদ সদস্য আশেক উল্লাহ রফিক, কালারমারছড়া ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান তারেক বিন ওসমান শরীফ, শাপলাপুর ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান আবদুল খালেক চৌধুরী উপস্থিত ছিলেন।

কোল পাওয়ারের প্রকল্প পরিচালক মোহাম্মদ আবুল কালাম আজাদ জানান, ইতিমধ্যে ৭৫ শতাংশ প্রকল্পের কাজ শেষ হয়েছে। এই বছরের শেষে অথবা আগামী বছরের জানুয়ারিতে তাপবিদ্যুৎ প্রকল্পটি আনুষ্ঠানিকভাবে উদ্বোধন করা হতে পারে।

বিএনএনিউজ/এইচ এম ফরিদুল আলম শাহীন/এইচ.এম।