Bnanews24.com
Home » সাফজয়ীদের চুরি যাওয়া টাকা ফেরত দেবে বাফুফে
খেলা ফুটবল

সাফজয়ীদের চুরি যাওয়া টাকা ফেরত দেবে বাফুফে

ছাদ খোলা বাসে ট্রফি হাতে সাবিনা খাতুন

সাফ জয়ী ফুটবলারদের লাগেজ থেকে চুরি যাওয়া অর্থ ও মূল্যবান জিনিসের খোঁজে অনুসন্ধান চালাচ্ছে বাংলাদেশ ফুটবল ফেডারেশন (বাফুফে)। সন্ধান পাওয়া না গেলে বাফুফে চুরি যাওয়া অর্থ ফেরত দেবে বলে। এমনটি জানিয়েছেন বাফুফের নারী উইংয়ের চেয়ারম্যান মাহফুজা আক্তার কিরণ।

বৃহস্পতিবার (২২ সেপ্টেম্বর) সংবাদমাধ্যমকে এ তথ্য জানান তিনি।

সাফ শিরোপা জয়ের পর নেপাল থেকে দেশে ফিরেই রাজসিক সংবর্ধনা পায় বাংলাদেশ নারী ফুটবল দল। বিমানবন্দরে একদফা সংবর্ধনা শেষে ছাদখোলা বাসে চড়ে মতিঝিলের বাফুফে ভবনে যাওয়ার পথে মানুষের ভিড়ে গাড়ি যেন এগোচ্ছিলই না। উৎসুক জনতাকে নিরাশ করেননি ইতিহাসগড়া মেয়েরা। ভ্রমণের ক্লান্তি উপেক্ষা করেই সারাটা সময় হাত নাড়িয়ে ট্রফি উঁচিয়ে অভিবাদনের জবাব দিয়ে গেছেন তারা।

সারাদিনের সংবর্ধনা ও ক্লান্তি শেষে ফুটবলাররা যখন লাগেজ হাতে পান, তখন বিষয়টি নজরে আসে তাদের। সাফজয়ী দলের দুই সদস্য কৃষ্ণা রানি সরকার ও শামসুন্নাহার সিনিয়রের লাগেজ ভেঙে ডলার ও টাকা চুরি হয়েছে। দুজনের ১৩০০ ডলার খোয়া গেছে। এ ছাড়া দলের অন্যান্য সদস্যের লাগেজও পাওয়া গেছে ভাঙা অবস্থায়।

এ ঘটনার নারী উইংয়ের চেয়ারম্যান মাহফুজা আক্তার কিরণ বলেন, আমরা বিমান বাংলাদেশ এয়ারলাইন্স, সিভিল এভিয়েশনকে আনুষ্ঠানিক চিঠি দিয়েছি। এছাড়া মতিঝিল থানা ও এয়ারপোর্ট থানাতেও সাধারণ ডায়েরি করা হয়েছে। কিরণের পাশে থাকা বাফুফে সাধারণ সম্পাদক আবু নাইম সোহাগ বলেন, বিমানবন্দর অথরিটি ও সিভিল এভিয়েশন ইতোমধ্যে কাজ করছে। তারা বিষয়টি তদন্ত করে আমাদের জানাবে।

এ ঘটনায় তদন্ত শুরু করেছে আর্মড পুলিশ ব্যাটিলিয়ন (এপিবিএন)। মাহফুজা আক্তার কিরণ জানিয়েছেন, বাফুফেকে আজকের মধ্যেই তদন্তের অগ্রগতি জানাবে এবিপিএন।

তিনি বলেন, এ ঘটনায় আমরা সবাই চিন্তিত। তদন্ত চলছে, আশা করি সমাধান পাওয়া যাবে। খেলোয়াড়দের লাগেজের নিরাপত্তা নিয়ে প্রশ্ন করা হলে কিরণ বলেন, বিমানবন্দর থেকে যখন লাগেজগুলো নিয়ে আসা হয়েছে, সেখানে পুলিশ পাহারা ছিল। আমাদের বাফুফের দুটি গাড়িও সার্বক্ষণিক নিরাপত্তায় ছিল। বাফুফে ভবনে যেখানে লাগেজগুলো রাখা হয়েছিল, সেখানকার সিসিটিভি ফুটেজও চেক করা হবে।

কিরণ বলেন, লাগেজগুলো তদারকির জন্য আমাদের ফেডারেশনের দশ জন লোক ছিল। সেখানে এমন কিছু হওয়া সম্ভব নয়। এরপরও তদন্ত চলছে। আশা করি আজকের মধ্যেই একটা আপডেট পাওয়া যাবে। বলেন, ওরা বাচ্চা মেয়ে। ওদের কাছে এটা অনেক টাকা। যদি না পাওয়া যায়, বাফুফে থেকে আমরা এটার ক্ষতিপূরণ দেবো।

আরও বলেন, দেখেন সেখানে আমার লাগেজও ছিল। সেটা কিন্তু অক্ষত অবস্থায় আছে।

এদিকে, শাহজালাল বিমানবন্দর থেকে অক্ষত অবস্থায় লাগেজ হস্তান্তর করা হয় বলে দাবি করেছে সিভিল এভিয়েশন।শাহজালাল বিমানবন্দর কর্তৃপক্ষ লাগেজ থেকে চুরির সত্যতা পাওয়া যায় নি বলে গণমাধ্যমকে নিশ্চিত করেছে।

আরও পড়ুন : ছাদখোলা বাসে সাফ চ্যাম্পিয়ন ফুটবল দল

বিএনএনিউজ২৪,জিএন