Bnanews24.com
টপ নিউজ ভাষা সৈনিক পরিচিতি সব খবর

ভাষা সৈনিক (২৬) মাওলানা আবদুর রশীদ তর্কবাগীশ

ভাষা সৈনিক আবদুর রশীদ তর্কবাগীশ

একুশের হত্যাকাণ্ডের প্রতিবাদে আইন পরিষদে প্রথম বক্তব্য রাখেন মাওলানা আবদুর রশীদ তর্কবাগীশ। তিনিই প্রথম ব্যক্তি যিনি একুশের হত্যাকাণ্ডের প্রতিবাদে প্রথম গণপরিষদের অধিবেশন বর্জন করেছিলেন। ১৯৫৫ সালের ১২ আগস্ট পাকিস্তান গণ-পরিষদে প্রথম বাংলায় বক্তৃতা করেন মাওলানা তর্কবাগীশ।

সিরাজগঞ্জ জেলার রায়গঞ্জ থানার অন্তর্গত তরুটিয়া গ্রামে ১৯০০ সালের ২৭ নভেম্বর বাংলা ভাষার জন্য নিবেদিতপ্রাণ মাওলানা আবদুর রশীদ তর্কবাগীশ জন্মগ্রহণ করেন। তিনি ভারতের দেওবন্দ মাদ্রাসায় শিক্ষালাভ করেন। তিনি ছাত্রাবস্থায় খিলাফত আন্দোলন ও অসহযোগ আন্দোলনে যোগ দেন (১৯২০-১৯২২)। ১৯২২ সালে তাঁর নেতৃত্বে সলঙ্গায় কৃষক বিদ্রোহ সংঘটিত হয়। এজন্য তিনি গ্রেফতার হন এবং ৬ মাসের কারাদণ্ডে দণ্ডিত হন।

মাওলানা তর্কবাগীশ ১৯৩৬ সালে মুসলিম লীগে যোগ দেন। ১৯৪৬ সালের নির্বাচনে মুসলিম লীগের প্রার্থী হিসেবে সিরাজগঞ্জে আসন থেকে বঙ্গীয় আইনসভার সদস্য নির্বাচিত হন। মুসলিম লীগের রাষ্ট্রভাষা নীতির বিরোধিতা করে ১৯৫৩ সালে তিনি মুসলিম লীগ ত্যাগ করে আওয়ামী মুসলিম লীগে যোগদান করেন।

১৯৫৪ সালে তর্কবাগীশ যুক্তফ্রন্টের প্রার্থী হিসেবে তৎকালীন পূর্ব-পাকিস্তান প্রাদেশিক পরিষদের সদস্য এবং ১৯৫৬ সালে আওয়ামী লীগ দলীয় প্রার্থী হিসেবে পাকিস্তান গণ-পরিষদের সদস্য নির্বাচিত হন। ১৯৫৭-৬৬ সাল পর্যন্ত তিনি তৎকালীন পূর্ব-পাকিস্তান আওয়ামী লীগের সভাপতি ছিলেন। ১৯৭০ সালের জাতীয় নির্বাচনে আওয়ামী লীগের প্রার্থী হিসেবে পাবনা-২ আসন থেকে তিনি জাতীয় পরিষদ সদস্য নির্বাচিত হন।

সূত্র: যারা অমর ভাষা সংগ্রামে, লেখক: এমআর মাহবুব

সম্পাদনায়: মনির ফয়সাল

পড়ুন আগের পর্ব: ভাষা সৈনিক (২৫) বিচারপতি আবদুর রহমান চৌধুরী পর্ব : ০৩