Bnanews24.com
অর্থ-বাণিজ্য চট্টগ্রাম টপ নিউজ সব খবর

টিসিবি’তে ভোজ্যতেল বিক্রি অব্যাহত থাকবে : বাণিজ্যমন্ত্রী

টিসিবি’তে ভোজ্যতেল বিক্রি অব্যাহত থাকবে : বাণিজ্যমন্ত্রী

বিএনএ,চট্টগ্রাম: বাণিজ্যমন্ত্রী টিপু মুনশি বলেছেন, আন্তর্জাতিক বাজারে দাম বৃদ্ধি পাওয়ায় দেশের বাজারেও ভোজ্যতেলের দাম বেড়েছে। তবে টিসিবির মাধ্যমে ভর্তুকি মূল্যে তেল বিক্রি অব্যাহত থাকবে।

বৃহস্পতিবার (১৮ ফেব্রুয়ারি) বিকেলে চট্টগ্রাম নগরীর বায়েজিদ বোস্তামিতে অবস্থিত বাংলাদেশ চা বোর্ডের কার্যালয়ে বঙ্গবন্ধু স্মৃতি গ্যালারি ও বঙ্গবন্ধু কর্নার উদ্বোধন শেষে তিনি এ কথা বলেন।

টিপু মুনশি বলেন, আন্তর্জাতিক বাজারের সঙ্গে সঙ্গতি রেখে দেশে খুচরা পর্যায়ে ভোজ্যতেলের দাম নির্ধারণ করা হলেও সাধারণ মানুষের জন্য টিসিবির মাধ্যমে ভর্তুকি মূল্যে তেল বিক্রি অব্যাহত থাকবে। ভোগ্যপণ্যের দর নির্ধারণে মন্ত্রণালয়ে একটি কমিটি আছে। যেখানে ব্যবসায়ীরাও আছেন। এ কমিটি বসে মূল্য নির্ধারণ করে থাকে। সমস্ত ডাটা নিয়ে বিস্তৃত আলোচনার পরিপ্রেক্ষিতে এটা করা হয়।
ট্টগ্রাম নগরীর বায়েজিদ বোস্তামিতে অবস্থিত বাংলাদেশ চা বোর্ডে-ছবি বাচ্চু বড়ূয়া

আন্তর্জাতিক বাজারে বিগত ৬ মাসে তেলের দাম ৬৭ শতাংশ বেড়েছে জানিয়ে বাণিজ্যমন্ত্রী বলেন, যেটা ৭০০ ডলার ছিল, সেটা এখন বিক্রি হচ্ছে সাড়ে ১১’শ ডলার। সেই দামসহ সার্বিক বিষয় বিবেচনা করে তেলের দাম নির্ধারণ করা হয়েছে। যেহেতু, দেশে প্রয়োজনের ৯০ ভাগ তেল আমদানি করতে হয়, তাই আন্তর্জাতিক বাজারের ওপর নির্ভর করতে হয়।

মন্ত্রী বলেন, রমজান মাসের চাহিদার যোগান দিতে ব্যবসায়ী ও টিসিবির কাছে ভোজ্যতেল, চিনি, গুড়, খেজুর, পেঁয়াজসহ সব ধরনের পণ্যের পর্যাপ্ত মজুত আছে। রমজানে নিত্যপণ্যের দাম সহনীয় থাকবে বলে ব্যবসায়ীরা আমাকে কথা দিয়েছেন।

বাণিজ্যমন্ত্রী বলেন, বঙ্গবন্ধু চা বোর্ডে যোগদানের দিনটিকে চা দিবস হিসেবে ঘোষণা করা হয়েছে। তিনি প্রথম বাঙালি যিনি চেয়ারম্যানের চেয়ারে বসেছিলেন। তিনি অসংখ্য ভালো কথা বলে গেছেন।

বঙ্গবন্ধুর স্মৃতিচারণ করে বাণিজ্যমন্ত্রী টিপু মুনশি বলেন, ছাত্র রাজনীতি করার সুবাদে বঙ্গবন্ধুর সঙ্গে দেখা হয়েছে। ১৯৭৩ সালে বঙ্গবন্ধুকে মালা পরাতে গেলাম। তিনি আমাকে বলেছিলেন, তুই মালাটা প্যাঁচ দিয়ে দে। বুঝতেই দিল না সুতা ছিঁড়ে গেছে। খুব সহজে কাছে টেনে নিতেন।

অনুষ্ঠানে বিশেষ অতিথির বক্তব্যে বাণিজ্য মন্ত্রণালয়ের সচিব ড. মো. জাফর উদ্দিন বলেন, প্রধানমন্ত্রীর দিক-নির্দেশনায় মন্ত্রী স্যারের নেতৃত্বে বাণিজ্য মন্ত্রণালয়ে আমরা কাজ করছি। এ গ্যালারি ব্যতিক্রম হয়েছে। এক্সিলেন্ট প্রেজেনটেশনের জন্য সংশ্লিষ্ট সবাইকে ধন্যবাদ। আমি বঙ্গবন্ধুকে দেখার সুযোগ পাইনি। তাই মন্ত্রী মহোদয়ের মুখে স্মৃতিচারণ শুনতে চাই।

অনুষ্ঠানে সভাপতির বক্তব্যে চা বোর্ডের চেয়ারম্যান মেজর জেনারেল মো. জহিরুল ইসলাম বলেন, বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান চা বোর্ডের প্রথম বাঙালি চেয়ারম্যান হিসেবে ১৯৫৭ সালের ৪ জুন থেকে ১৯৫৮ সালের ২৩ অক্টোবর পর্যন্ত দায়িত্বপালন করেন। চা শিল্পে বঙ্গবন্ধুর অবদান অবিস্মরণীয় করে রাখতে মুজিব জন্মশতবার্ষিকী উদযাপনের অন্যতম প্রধান কার্যক্রম হিসেবে বঙ্গবন্ধু স্মৃতি গ্যালারি ও বঙ্গবন্ধু কর্নার করা হয়েছে।

অনুষ্ঠানে উপস্থিত ছিলেন বাণিজ্য মন্ত্রণালয়ের অতিরিক্ত সচিব মো. হাফিজুর রহমান, চা বোর্ডের সদস্য মোহাম্মদ নুরুল আলম চৌধুরী, ড. নাজনীন কাউসার চৌধুরী, বাণিজ্য মন্ত্রণালয়ের যুগ্ম সচিব আব্দুর রহিম খান প্রমুখ।

বিএনএনিউজ/মনির