Bnanews24.com
এক নজরে চট্টগ্রাম সব খবর

কঠোর লকডাউনেও স্বাস্থ্যবিধি না মানায় ৪২ জনকে জরিমানা

বিএনএ,চট্টগ্রাম: করোনার সংক্রমণ প্রতিরোধে দেশজুড়ে চলছে কঠোর লকডাউন। এমন পরিস্থিতিতেও মানছে না স্বাস্থ্যবিধি। তাই স্বাস্থ্যবিধি না মানা, মাস্ক না পরাসহ বিভিন্ন অপরাধে চট্টগ্রাম নগরীতে ৪২ জনকে ৪১ হাজার ৩০০ টাকা জরিমানা করেছে ভ্রাম্যমাণ আদালত।

বৃহস্পতিবার (১৫ এপ্রিল) সর্বাত্মক লকডাউনের দ্বিতীয় দিনে চট্টগ্রাম জেলা প্রশাসনের ১০ ম্যাজিস্ট্রেট নগরীতে অভিযান পরিচালনা করে। নগরীর পাহাড়তলী, হালিশহর, আকবরশাহ, পতেঙ্গা, ইপিজেড, বন্দর, পাঁচলাইশ, বাকলিয়া, চকবাজার, খুলশী, বায়েজিদ, চান্দগাঁও, কোতোয়ালী, ডবলমুরিং, সদরঘাটে ভ্রাম্যমাণ আদালতের অভিযানে এই জরিমানা করা হয়।

এ বিষয়ে চট্টগ্রাম জেলা প্রশাসনের নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট ওমর ফারুক বলেন, কঠোর লকডাউন বাস্তবায়ন ও স্বাস্থ্যবিধি নিশ্চিতে আজ নগরের বিভিন্ন স্থানে ভ্রাম্যমাণ আদালতের অভিযান পরিচালনা করা হয়েছে। এসব অভিযানে জরিমানার পাশাপাশি সচেতনতার জন্য মাস্কও বিতরণ করা হয়েছে।

জেলা প্রশাসন সূত্রে জানা যায়, নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট মো. সোহেল রানা পাহাড়তলী, হালিশহর ও আকবরশাহ এলাকায় অভিযান চালিয়ে ছয়টি মামলায় ৩ হাজার ১০০ টাকা, নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট মুহাম্মদ ইনামুল হাছান দুটি মামলায় ৭০০ টাকা জরিমানা আদায় করেন। একই সময় নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট এহসান মুরাদ পতেঙ্গা, ইপিজেড ও বন্দর এলাকায় পাঁচটি মামলায় ৪ হাজার ১০০ টাকা ও নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট গালিব চৌধুরী তিনটি মামলায় ২ হাজার টাকা জরিমানা আদায় করেন।

এছাড়া নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট মো. মোজাম্মেল হক চৌধুরী পাঁচলাইশ, বাকলিয়া ও চকবাজার এলাকায় ১২টি মামলায় ১৭ হাজার টাকা ও নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট হুছাইন মুহাম্মদ চারটি মামলায় ৩ হাজার ৭০০ টাকা জরিমানা আদায় করেন। একইসঙ্গে নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট ফাহমিদা আফরোজ খুলশী, বায়েজিদ ও চান্দগাঁও এলাকায় ছয়টি মামলায় ৪ হাজার টাকা ও নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট সুরাইয়া ইয়াসমিন একটি মামলায় ৫ হাজার টাকা অর্থদণ্ড আদায় করেন।

নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট রেজওয়ানা আফরিন কোতোয়ালী, সদরঘাট ও ডবলমুরিং এলাকায় তিনটি মামলায় ১ হাজার ৭০০ টাকা অর্থদণ্ড আদায় করেন। এছাড়া নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট সোনিয়া হক ওই এলাকায় সরকারি আদেশ মেনে চলার ব্যাপারে জনসাধারণকে সচেতন করেন এবং মাস্ক বিতরণ করেন।

এছাড়াও লকডাউন সফল করার লক্ষ্যে সন্ধ্যার পর থেকে নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট মো. উমর ফারুক ও আব্দুল্লাহ আল মামুনের নেতৃত্বে নগরীর বিভিন্নস্থানে অভিযান পরিচালনা করা হয়েছে।

বিএনএনিউজ/মনির