৫ অক্টোবর খুলে দেয়া হচ্ছে ঢাবি’র হল

বিএনএ ঢাকা: আগামি ৫ অক্টোবর থেকে অন্তত এক ডোজ টিকা নেয়ার শর্তে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের (ঢাবি) আবাসিক হলগুলো খুলে দেয়ার সুপারিশ করেছে প্রভোস্ট স্ট্যান্ডিং কমিটি। পাশাপাশি ২৬ সেপ্টেম্বর থেকে লাইব্রেরি খোলার সুপারিশও করা হয়। বুধবার (১৫ সেপ্টেম্বর) সন্ধ্যায় অনুষ্ঠিত এক ভার্চ্যুয়াল সভায় এই সুপারিশ করে কমিটি।

আরো পড়ুন

সভায় উপস্থিত একাধিক প্রভোস্ট সংবাদ মাধ্যমকে বিষয়টি নিশ্চিত করে বলেন, স্বাস্থ্যবিধি মেনে স্নাতক চতুর্থ বর্ষ এবং স্নাতকোত্তর শিক্ষার্থীদের জন্য হলগুলো খোলার সুপারিশ করা হয়েছে। যা বৃহস্পতিবার বিশ্ববিদ্যালয়ের অ্যাকাডেমিক কাউন্সিলের সভায় চূড়ান্ত করা হবে।

সভার সিদ্ধান্তের বিষয়ে শহীদুল্লাহ হলের প্রাধ্যক্ষ (ভারপ্রাপ্ত) ড. মুহাম্মদ জাবেদ হোসেন বলেন, ৫ অক্টোবর সকাল আটটা থেকে স্বাস্থ্যবিধি মেনে আবাসিক হল খোলা যেতে পারে। সেক্ষেত্রে স্নাতক শেষবর্ষ ও স্নাতকোত্তর শিক্ষার্থীরা অন্ততপক্ষে একডোজ নিয়ে আবাসিক হলে উঠতে পারবেন। শিক্ষার্থীরা টিকা কার্ড প্রদর্শন করে লাইব্রেরি ব্যবহার করতে পারবেন বলেও জানান তিনি।

বিশ্ববিদ্যালয়ের আবাসিক হল খোলার বিষয়ে সিদ্ধান্ত নিতে উপাচার্য অধ্যাপক ড. মো. আখতারুজ্জামানের সভাপতিত্বে আয়োজিত সভায় প্রভোস্ট স্ট্যান্ডিং কমিটির আহ্বায়ক ও ঢাবি’র বিজয় একাত্তর হলের প্রভোস্ট অধ্যাপক ড. আব্দুল বাছির, সদস্য সচিব ও প্রক্টোর অধ্যাপক ড. এ কে এম গোলাম রাব্বানীসহ বিভিন্ন হলের প্রভোস্টরা উপস্থিত ছিলেন।

করোনা মহামারির সংক্রমণ রোধে গত বছরের ১৮ মার্চে থেকে ঢাবি’র সব আবাসিক হল বন্ধ রয়েছে। সম্প্রতি করোনা ভাইরাসের সংক্রমণ কিছুটা নিয়ন্ত্রণে আসায় প্রায় ১৮ মাস পর হল খোলার কথা ভাবছে বিশ্ববিদ্যালয় প্রশাসন।

বিএনএনিউজ/আরকেসি