26 C
আবহাওয়া
১০:৩৯ অপরাহ্ণ - জুন ১৮, ২০২৪
Bnanews24.com
Home » বিনোদপুর বাজার থমথমে, টহলে আইনশৃঙ্খলা বাহিনী

বিনোদপুর বাজার থমথমে, টহলে আইনশৃঙ্খলা বাহিনী

রাবি

বিএনএ, রাজশাহী: রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয়ের (রাবি) শিক্ষার্থী ও স্থানীয়দের মধ্যে সংঘর্ষের ঘটনায় বিনোদপুর বাজারে থমথমে পরিবেশ বিরাজ করছে। রোববার সকাল থেকে সেখানে কোনো কোনো দোকানপাট খোলা হয়নি। তবে মোতায়েন রয়েছে চার প্লাটুন পুলিশ। এছাড়া পুরো এলাকায় টহল দিচ্ছে র‍্যাব ও বিজিবি।

রাতের সংঘর্ষের ঘটনায় রাজশাহী মেডিকেল কলেজ হাসপাতাল ও বিশ্ববিদ্যালয় মেডিকেল সেন্টারের চিকিৎসা নিয়েছেন আড়াই শতাধিক শিক্ষার্থী। সকাল থেকে ক্যাম্পাসের পরিস্থিতি শান্ত রয়েছে তবে সকাল ১০টায় বিক্ষোভ সমাবেশ অনুষ্ঠিত হওয়ার কথা রয়েছে।

ক্লাস-পরীক্ষা স্থগিত

এদিকে সংঘর্ষের জেরে দুদিন সব ধরনের ক্লাস ও পরীক্ষা স্থগিতের ঘোষণা দিয়েছে কর্তৃপক্ষ। রোববার ও সোমবার সব ধরনের ক্লাস ও পরীক্ষা স্থগিত থাকবে। ঘটনার প্রায় ৪ ঘণ্টা পর শিক্ষার্থীদের সঙ্গে কথা বলতে আসেন উপাচার্য অধ্যাপক গোলাম সাব্বির সাত্তার। তিনি মাইকে ক্লাস পরীক্ষা স্থগিতের ঘোষণা দেন। এসময় শিক্ষার্থীদের তোপের মুখে পড়েন তিনি। শিক্ষার্থীরা ক্যাম্পাস বন্ধের প্রতিবাদ জানান।

উপাচার্য হাত মাইকে শিক্ষার্থীদের উদ্দেশে বলেন, ‘তোমাদের প্রতি অনুরোধ হলে ফিরে যাও। তোমাদের জন্য প্রশাসন সর্বোচ্চ নিরাপত্তা নিশ্চিত করছে। রুমে যাও তোমরা। এ ঘটনায় প্রশাসন ব্যবস্থা নিচ্ছে।’

শনিবার সন্ধ্যায় বিশ্ববিদ্যালয়ের বিনোদপুর বাজার এলাকায় সংঘর্ষের সূত্রপাত হয়। পুলিশ ও প্রত্যক্ষদর্শীরা জানায়, বগুড়া থেকে ‘মোহাম্মদ’ নামে একটি যাত্রীবাহী বাসে রাজশাহী যাচ্ছিলেন বিশ্ববিদ্যালয়ের সমাজ বিজ্ঞান বিভাগের ২০১৭-১৮ শিক্ষাবর্ষের শিক্ষার্থী আলামিন আকাশ। এসময় সিটে বসাকে কেন্দ্র করে গাড়ির চালক শরিফুল ও সুপারভাইজার রিপনের সঙ্গে তার কথা কাটাকাটি হয়। এই ঘটনায় বিশ্ববিদ্যালয়ের বিনোদপুর গেট এসে আবারও সুপারভাইজারের সঙ্গে তার বাগবিতণ্ডা শুরু হলে স্থানীয় এক দোকানদার এসে ওই শিক্ষার্থীর ওপর চড়াও হন। এক পর্যায়ে উভয়ের মধ্যে ধাক্কাধাক্কির ঘটনা ঘটে। তখন বিশ্ববিদ্যালয়ের সমাজ বিজ্ঞান বিভাগের শিক্ষার্থীরা ঘটনাস্থলে জড়ো হয়ে স্থানীয় দোকানদারদের ওপর পাল্টা চড়াও হন। পরে স্থানীয়রাও একজোট হয়ে বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষার্থীদের ওপর হামলা চালায়। এক পর্যায়ে দুপক্ষের মধ্যে ধাওয়া-পাল্টা ধাওয়া ও সংঘর্ষ বাঁধে।

সংঘর্ষের এক পর্যায়ে শিক্ষার্থীরা ঢাকা-রাজশাহী মহাসড়ক অবরোধ করেন। দুই পক্ষ পরস্পরকে লক্ষ্য করে ইট-পাটকেল ছুড়তে থাকে। পরে স্থানীয়রা লাঠিসোঁটা নিয়ে শিক্ষার্থীদের ওপর হামলা করলে বিনোদপুর বাজার এলাকা রণক্ষেত্রে পরিণত হয়।

Loading


শিরোনাম বিএনএ