পাকিস্তানকে হারাতে প্রস্তুত বাংলাদেশ

স্পোর্টস ডেস্ক: চলমান নারী এশিয়া কাপে বাংলাদেশ ও পাকিস্তান দুদলই ফেভারিট। দুদলই নিজেদের প্রথম ম্যাচে দাপুটে জয় তুলে নিয়েছে। এবার একে অপরের বিপক্ষে লড়বে। সোমবার (৩ অক্টোবর) সকাল ৯টায় মাঠে নামবে বাংলাদেশের টাইগ্রেসরা। সিলেট আন্তর্জাতিক ক্রিকেট স্টেডিয়ামে তাদের প্রতিপক্ষ পাকিস্তানের নারী দল। এই ম্যাচের আগে পাকিস্তানকে হারাতে নিজেদের পরিকল্পনা জানিয়ে দিয়েছেন বাংলাদেশ নারী দলের অন্যতম তারকা রুমানা আহমেদ।

আরো পড়ুন

সিলেটে গতকাল গণমাধ্যমে এই স্পিনিং অলরাউন্ডার জানিয়েছেন, স্পিন আক্রমণে ঘায়েল করে পাকিস্তানকে হারাতে চান তারা। যদিও পাকিস্তানের বিপক্ষে টি-টোয়েন্টি ফরম্যাটে সফল নয় বাংলার নারীরা। আর এবারের এশিয়া কাপ হচ্ছে টি-টোয়েন্টি ফরম্যাটেই।

এখন পর্যন্ত পাকিস্তানি নারীদের বিপক্ষে ১৫ টি-টোয়েন্টি ম্যাচ খেলে মাত্র একটিতে জিততে পেরেছে বাংলাদেশ। তবে এই ফরম্যাটে দুদল সর্বশেষ খেলেছে প্রায় তিন বছর আগে। এরপর থেকে দুদল ওয়ানডেতে মুখোমুখি হয়েছে এবং সেখানে পরিষ্কারভাবে এগিয়ে টাইগ্রেসরা।

এই সময়ের মধ্যে তিন ওয়ানডে খেলে তিনটিতেই জিতেছে টাইগ্রেসরা। এছাড়াও দুদলের মধ্যকার সর্বশেষ ৫ ওয়ানডের চারটাই জিতেছে বাংলাদেশের নারীরা। এবার টি-টোয়েন্টিতেও সেই জয়ের ধারায় ফিরতে চায় রুমানারা। আর তার জন্য স্পিন আক্রমণই ভরসা বলে জানিয়েছেন এই তারকা।

রুমানা আহমেদ বলেন, ‘আমি যেটা মনে করি, জানি ওরা স্পিন বল ভালো খেলে। কিন্তু স্পিন দিয়েই তো ওদের বরাবর অ্যাটাক করেছি। আমাদের স্পিনাররা আগের চেয়ে বেশি ভালো করছে। আমরা দেখেছি আমাদের খেলা ম্যাচগুলোতে স্পিনাররা সর্বোচ্চ চেষ্টা করে আসছে। এখানেও পাকিস্তানকে হারাতে আমাদের স্পিন যথেষ্ট।’

প্রথম ম্যাচে থাইল্যান্ডের বিপক্ষে ৩ উইকেট নেওয়া রুমানা নিজের পারফরম্যান্স দিয়ে দলের জয়ে অবদান রাখতে চান জানিয়ে আরো যোগ করেন, ‘আমি চেষ্টা করি সব সময় অলরাউন্ড পারফরম্যান্স করতে। ওই ধারাবাহিকতাই রাখার চেষ্টা করব। সামনে এটা আমাদের গুরুত্বপূর্ণ ম্যাচ। ব্যাটে-বলে অবদান রাখার চেষ্টা করব। আমি কখনো শুধু ব্যাটিং বা বোলিং দিয়ে হিরো হচ্ছি না। দুটোতেই আমি অবদান রাখছি। ব্যাটে বলে তাল বা সামঞ্জস্য রাখার চেষ্টা করছি। হয়তো সব সময় রাখতে পারি না, তবুও চেষ্টা করেছি দুটোতেই যেন ক্লিক করে।’

এশিয়া কাপের জন্য বাংলাদেশ দল : নিগার সুলতানা জ্যোতি (অধিনায়ক), শামিমা সুলতানা, ফারাজানা হক পিংকি, রুমানা আহমেদ, রিতু মনি, লতা মন্ডল, সালমা খাতুন, সোবহানা মুস্তারি, নাহিদা আক্তার, মুর্শিদা খাতুন, জাহানারা আলম, ফাহিমা খাতুন, সানজিদা আক্তার মেঘলা, ফারিহা ইসলাম তৃষ্ণা ও সোহেলি আক্তার।

বিএনএনিউজ২৪/এমএইচ