29 C
আবহাওয়া
৭:৪১ পূর্বাহ্ণ - এপ্রিল ২৩, ২০২৪
Bnanews24.com
Home » অরুণাচলের ৩০ স্থানের চীনা নাম দিল বেইজিং, ক্ষুব্ধ ভারত

অরুণাচলের ৩০ স্থানের চীনা নাম দিল বেইজিং, ক্ষুব্ধ ভারত


বিএনএ, বিশ্বডেস্ক : অরুণাচল প্রদেশ নিয়ে ভারত-চীনের মধ্যে আবারও উত্তেজনা দেখা দিয়েছে। অরুণাচলের ৩০টি জায়গার নতুন নামকরণ করেছে বেইজিং। সোমবার (১ এপ্রিল) অরুণাচলের ৩০টি স্থানের নিজেদের দেয়া নামের তালিকা প্রকাশ করে দেশটির বেসামরিক সম্পর্কবিষয়ক মন্ত্রণালয়। চীন সরকারের ওয়েবসাইটে বলা হয়েছে, আগামী ১ মে থেকে নতুন নাম কার্যকর হবে।

চীনের নামকরণের বিষয়টি প্রত্যাখ্যান করে ভারত বলেছে, অরুণাচল তাদের অবিচ্ছেদ্য অংশ। চীনের ‘উদ্ভাবিত’ নাম এ বাস্তবতা পাল্টাতে পারবে না।

এবার ১১টি আবাসিক এলাকা, ১২টি পার্বত্য এলাকা, ৪টি নদী, ১টি হ্রদ, ১টি গিরিপথ ও ১টি ফাঁকা ভূমির নাম রেখেছে চীন। চীনের বেসামরিক বিষয়ক মন্ত্রণালয়ের ওয়েবসাইটে এই তালিকা প্রকাশ করে জানানো হয়েছে সামনের মাসের প্রথম দিন থেকেই এসব নাম কার্যকর হতে যাচ্ছে।

এর আগে ২০১৭, ২০২১ ও ২০২৩ সালে চীন তিন দফায় অরুণাচলের বিভিন্ন এলাকার নাম নিজেদের মতো করে রেখেছিল। ২০১৭ সালে প্রথমবার অরুণাচলের ছয়টি স্থানের চীনা নাম প্রকাশ করা হয়। পরে ২০২১ সালে দ্বিতীয় দফায় ১৫টি আর ২০২৩ সালে তৃতীয় দফায় আরও ১১টি স্থানের নামের তালিকা প্রকাশ করে চীন।

এদিকে, বিষয়টি নিয়ে স্বাভাবিকভাবেই চরম ক্ষোভ প্রকাশ করেছে ভারত। দেশটির পররাষ্ট্রমন্ত্রী এস জয়শংকরের সাফ কথা, আপনার বাড়ির নতুন নাম দিলে, বাড়িটা কি আমার হয়ে যাবে? এসব নামকরণ করে কোনো লাভ নেই। অরুণাচল ভারতের অবিচ্ছেদ্য অংশ ছিল, আছে ও থাকবে।

ভারতের পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয় এক বিবৃতিতে বলেছে, নির্বোধের মতো কাজ করেছে চীন। নতুন নামকরণ করলেও বাস্তবতা বদলে যাবে না। অরুণাচল ভারতের অবিচ্ছেদ্য অংশ ছিল, আছে আর থাকবে। বেইজিংয়ের নতুন এই নামকরণ কোনোভাবেই মেনে নেওয়া হবে না।

 

অরুণাচলকে চীন নিজেদের রাজ্য ‘জ্যাংনান’ হিসেবে দাবি করে। বিষয়টি নিয়ে ভারতের সঙ্গে তাদের দীর্ঘদিনের বিবাদ চলে আসছে। একদিকে ভারতের দাবি, অরুণাচল প্রদেশ ভারতের অবিচ্ছেদ্য অংশ, অন্যদিকে চীনও প্রদেশটিকে নিজেদের বলে দাবি করে আসছে।

বিএনএনিউজ/এইচ.এম/হাসনা

Loading


শিরোনাম বিএনএ