Bnanews24.com
Home » চসিক নির্বাচনে ভ্যানগার্ডের ভূমিকা নিতে হবে যুবলীগকে : ইঞ্জিনিয়ার মোশাররফ
এক নজরে চট্টগ্রাম সব খবর

চসিক নির্বাচনে ভ্যানগার্ডের ভূমিকা নিতে হবে যুবলীগকে : ইঞ্জিনিয়ার মোশাররফ

চসিক নির্বাচনে ভ্যানগার্ডের ভূমিকার নিতে হবে যুবলীগকে : ইঞ্জিনিয়ার মোশাররফ

বিএনএ,চট্টগ্রাম: আওয়ামী লীগের প্রেসিডিয়াম সদস্য, স্বাধীনতা পদকপ্রাপ্ত বীর মুক্তিযোদ্ধা ও সাবেক মন্ত্রী ইঞ্জিনিয়ার মোশাররফ হোসেন এমপি বলেছেন, চট্টগ্রাম সিটি করপোরেশনে চলতি মাসে মেয়র নির্বাচন হতে যাচ্ছে। আজকে যে জোড়াতালি দেখছি যুবলীগের এর বাইরেও যুবলীগের অনেক নেতাকর্মী আছে। যুবলীগের এখানে যারা সভাপতি, সাধারণ সম্পাদক আছেন আমি তাদেরকে বলবো, আপনারা ঐক্যবদ্ধ হয়ে ৪১ ওয়ার্ডে ভ্যানগার্ডের ভূমিকা নিলে মহিউদ্দীন চৌধুরীর মতো রেজাউল করিমও মেয়র নির্বাচিত হবেন।

শনিবার (২ জানুয়ারি) চট্টগ্রাম নগরীর ইন্ট্যারন্যাশনাল কনভেনশন সেন্টারে নগর যুবলীগ আয়োজিত সাবেক মেয়র এ বি এম মহিউদ্দিন চৌধুরীর তৃতীয় মৃত্যুবার্ষিকী উপলক্ষে স্মরণ সভায় তিনি এ কথা বলেন।

মহিউদ্দীন চৌধুরীর সময়কালে চট্টগ্রাম সিটি কর্পোরেশনের রাস্তাঘাট ও কাজের প্রশংসা করে আওয়ামী লীগের এই প্রেসিডিয়াম সদস্য বলেন, ‘মহিউদ্দীন চৌধুরী যে কাজ করেছেন এই চট্টগ্রাম সিটি কর্পোরেশনের জন্য সেটা আমাদের নেত্রী শেখ হাসিনা স্বীকার করেছেন। মহিউদ্দীন চৌধুরীর সময় রাস্তা পরিষ্কার ছিল, রাস্তা ভাঙ্গা ছিলনা। এখন কেন রাস্তাভাঙ্গা; প্রধানমন্ত্রী এরকম মন্তব্য করেছেন এক সভায়।

মহিউদ্দীন চৌধুরীকে স্মরণ করে তিনি বলেন, ‘প্রতিটা আন্দোলন সংগ্রামে মহিউদ্দীন চৌধুরীর নেতৃত্বে আমরা আন্দোলন সংগ্রাম করেছি। মহিউদ্দীন চৌধুরী কোনোদিন আন্দোলন সংগ্রামে ভয় পাননি। অসীম সাহসে এগিয়ে যেতেন সকল আন্দোলন সংগ্রামে। এরশাদ বিরোধী আন্দোলন সংগ্রামসহ সকল আন্দোলন সংগ্রামে এগিয়ে গিয়েছিল মহিউদ্দীন চৌধুরী। আমরা এমনভাবে আন্দোলন সংগ্রাম করেছি ঢাকা-চট্টগ্রাম রোড পর্যন্ত মহিউদ্দীন চৌধুরীর নেতৃত্বে বন্ধ করে দিয়েছি।

আওয়ামীলীগের এই প্রবীণ নেতা আরও বলেন, ‘আজকে অকুতভয় সৈনিক আমাদের মাঝে নেই। মহিউদ্দীন চৌধুরী এই মহানগরে বিপুল ভোটে তিন-তিনবার মেয়র নির্বাচিত হয়েছিলেন। এমনকি বিএনপির আমলে তাদের সরকার ক্ষমতা থাকার সময়েও আমরা মহিউদ্দীন চৌধুরীকে ১৭ হাজার ভোটে মেয়র র্নিবাচিত করতে সক্ষম হয়েছি।

যেখানে মানুষের কষ্ট হতো সেখানে মহিউদ্দীন চৌধুরী ঝাঁপিয়ে পড়তেন। আপনারা সবাই মিলে কাজ করলে মহিউদ্দিন চৌধুরীর আত্মাও শান্তি পাবে। আমার সাথে যারা ছিলেন, সবাই চলে গেছেন। এখন শুধু আমি বেঁচে আছি, আমিও চলে যাবো। থাকবে শুধু কাজ। মহিউদ্দিন চৌধুরী চলে গেলেও তাঁর কাজ এখনো রয়ে গেছে।

নগর যুবলীগের আহ্বায়ক মহিউদ্দিন বাচ্চুর সভাপতিত্বে অনুষ্ঠিত স্মরণ সভায় বক্তব্য রাখেন সংগঠনের কেন্দ্রীয় কমিটির সাধারণ সম্পাদক মাঈনুল হোসাইন খান নিখিল, চার যুগ্ম আহ্বায়ক দেলোয়ার হোসেন খোকা, ফরিদ মাহমুদ, দিদারুল আলম ও মাহবুবুল হক সুমন, নগর যুবলীগের সাবেক সাধারণ সম্পাদক চন্দন ধর, প্রেসিডিয়াম সদস্য শাহাদাত হোসেন তসলিম, যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক বদিউল আলম, সাংগঠনিক সম্পাদক শহিদুল হক চৌধুরী রাসেল, উত্তর জেলা যুবলীগের সভাপতি এস এম আল মামুন, দক্ষিণ জেলা যুবলীগের সভাপতি আ ন ম টিপু সুলতানসহ কেন্দ্রীয় যুবলীগ চট্টগ্রাম উত্তর জেলা, দক্ষিণ জেলা ও নগর যুবলীগের নেতৃবৃন্দ।

বিএনএনিউজ/মনির