33 C
আবহাওয়া
১২:৪৬ পূর্বাহ্ণ - জুন ৭, ২০২৩
Bnanews24.com
Home » ৫ দফা দাবিতে চলছে লাইটার জাহাজে পণ্য পরিবহন ধর্মঘট

৫ দফা দাবিতে চলছে লাইটার জাহাজে পণ্য পরিবহন ধর্মঘট


বিএনএ, চট্টগ্রাম: চট্টগ্রাম বন্দরের চেয়ারম্যানের প্রত্যাহারসহ পাঁচ দফা দাবিতে কর্মবিরতি পালন করছেন লাইটার শ্রমিকরা। এর ফলে বন্দর থেকে নৌপথে সারাদেশে পণ্য পরিবহন বন্ধ রয়েছে।

শুক্রবার (১১ নভেম্বর) ভোর ছয়টা থেকে কর্ণফুলীর ১৬টি ঘাট ও বহির্নোঙরে অবস্থানরত লাইটার শ্রমিকরা কাজ বন্ধ করে দেন। এর আগে বৃহস্পতিবার বিকেলে ‘সর্বস্তরের নৌযান শ্রমিকবৃন্দ’ ব্যানারে আয়োজিত এক সমাবেশ থেকে এই কর্মসূচি ঘোষণা করেন শ্রমিক নেতারা।

পাঁচ দফা দাবি হচ্ছে- চট্টগ্রাম বন্দর চেয়ারম্যানের অপসারণ, পতেঙ্গা থানার ওসির অপসারণ, চরপাড়া ঘাটের ইজারা বাতিল, সাঙ্গু নদীর মুখ খনন এবং লোড ও খালি লাইটার জাহাজ বহিঃনোঙরে সার্ভে করা।

এ বিষয়ে বাংলাদেশ লাইটারেজ শ্রমিক ফেডারেশনের সভাপতি নবী আলম  বলেন, লোড আনলোডের অপেক্ষমাণ লাইটারেজগুলো আগে কর্ণফুলী নদীর উজানে রাখা হতো। পরে বন্দর কর্তৃপক্ষের নির্দেশনায় গত দেড় বছর ধরে সরিয়ে জাহাজগুলো পতেঙ্গা সৈকতের সামনে বহিঃনোঙরের কাছে রাখা হয়। তখন থেকে শ্রমিকদের ওঠানামার জন্য বন্দর কর্তৃপক্ষ চরপাড়া ঘাট নির্মাণ করে দেয়। অতি সম্প্রতি চরপাড়া ঘাট ইজারা দেওয়া হয়। ঘাট ইজারা দেওয়ার পর থেকে অন্যায্য বেশি টাকা আদায় করা নিয়ে প্রতিবাদ করলে শ্রমিকদের উপর হামলা ও লাঞ্ছিত করা হচ্ছিল। এরপর শ্রমিকরা পতেঙ্গা সৈকত এলাকা সংলগ্ন চায়নিজ ঘাট ব্যবহার শুরু করে।

তিনি বলেন, শ্রমিক হামলার ঘটনায় আমরা পতেঙ্গা থানায় লিখিত অভিযোগ দিয়েছি। পুলিশ প্রথমে অভিযোগই নিতে চায়নি। পরে নিলেও হামলাকারীদের বিরুদ্ধে কোনো ব্যবস্থা নেয়নি। উপরন্তু একদিন আগে বন্দর কর্তৃপক্ষ চায়নিজ ঘাটটি উচ্ছেদ করে দেয়। চায়নিজ ঘাট উচ্ছেদ করায় শ্রমিকরা বাজার করার জন্যও নামতে পারেনি। তাই শ্রমিকরা কাজ বন্ধ করে দিয়েছে।

শুক্রবার বিকেল তিনটায় স্ট্র্যান্ড রোডের বাংলাবাজার লাইটার শ্রমিক ইউনিয়ন কার্যালয়ের সামনে সমাবেশ করবেন বলে জানান নবী আলম।

উল্লেখ্য, নদীপথে প্রতিবছর ছয় কোটি টনের বেশি পণ্য পরিবহন হয়। এই পণ্যের মধ্যে রয়েছে সিমেন্ট, সিরামিকস ও ইস্পাতশিল্পের কাঁচামাল, সার, কয়লা ও ভোগ্যপণ্য। লাইটার জাহাজে পণ্য পরিবহন বন্ধ থাকলে চট্টগ্রাম থেকে সারা দেশে নদীপথে পণ্য পরিবহন বন্ধ হয়ে যাবে। এতে করে বিপাকে পড়বেন ব্যবসায়ীরা।

বিএনএ/এমএফ

Total Viewed and Shared : 118 


শিরোনাম বিএনএ